বিবিসি প্রেসঃ সোনারগাঁ উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অবৈধ ও বৈধ গ্যাসের বিলের পরিশোধ না করায় শনিবার (৫ জুন) দুপুর থেকে উপজেলা ও তার আশেপাশের কয়েক এলাকায় গ্যাস লাইন পাইপের গ্যাস সংযোগ বিছিন্ন করে দিয়েছে তিতাস ডিস্টিবিউশন কোং। এতে ভোগান্তীতে পড়েছে কয়েক হাজার বৈধ গ্যাস গ্রাহকরা।
এই বিষয়ে স্থানীয়াদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, সোনারগাঁ উপজেলার বৈদ্যেরবাজার ও বারদীসহ পৌরসভায় কয়েক জায়গায় কিছু অবৈধ গ্যা্স সংযোগ রয়েছে। এছাড়া অনেক বৈধ গ্রাহকরাও দীর্ঘদিন ধরে গ্যাস ব্যবহার করে নিয়মিত গ্যাস বিল পরিশোধ করেন না। সে কারণে তিতাস ডিস্টিভিউশন কোং হেড অফিসের কয়েকজন কর্মকর্তা এসে দৈলেরবাগ এলাকার উপজেলার দিকের চার ইঞ্চি লাইনের পুরো সংযোগ বিছিন্ন করে বাল্বের চাবিটি নিয়ে যান। তাই গতকাল শনিবার দুপুরে থেকে ওইসব এলাকার গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে। কবে নাগাদ চালু হবে সে ব্যাপারে কোন কিছুই জানে না বলে জানান।
রবিবার সকালে সরেজমিনে দৈলেরবাগ এলাকায় গিয়ে দেখা যায় অনেক গ্যাস গ্রাহক ভীড় করেছেন গ্যাস অফিসের সামনে। কি কারনে গ্যাস বন্ধ তা জানতে এখানে ভীড় করেছেন। বিচ্ছিনের কারণ শুনে অনেক বৈধ গ্রাহকরা ক্ষেপে যান। তারা বলতে থাকেন এইটা একধরণের ভোগান্তি। কিছু লোকের কারণে আমাদের মতো বৈধ গ্রাহকদের গ্যাস বন্ধ করে রেখেছেন।
তারা আরো বলেন, এইভাবে সাধারণ মানুষকে হয়রানি না করে যারা অবৈধ গ্যাস ও বকেয়া বিল পরিশোধ করেনি তাদেরকে চিহ্নিত করে তাদের লাইন বিচ্ছিন্ন করুক।

Translate »